আম্মুর জেদে আজ অভিনয় শিল্পী : পূজা চেরি

এই সময়ের জনপ্রিয় নায়িকাদের একজন পূজা চেরি। নায়িকা হিসেবে পূজার আত্মপ্রকাশ রায়হান রাফির ‘পোড়ামন টু’ ছবিতে। এর আগে, শিশুশিল্পী হিসেবে রূপালি পর্দায় পা রাখেন মনতাজুর রহমান আকবরের ‘ছোট্ট সংসার’ ছবিতে।

সম্প্রতি এক সংবাদ মাধ্যমে দেওয়া সাক্ষাৎকারে পূজা জানান, মায়ের জেদের কারণে তিনি অভিনয় শিল্পী হয়েছেন।

শিশুশিল্পী হিসেবে প্রথম পূজা অভিনয় করেন জাকির হোসেন রাজুর ‘মনের ঘরে বসত করে’ ছবিতে। তবে তার অভিনয়ের অংশটুকু বাদ দেওয়ার কারণে, পর্দায় আর তাকে দেখা যায়নি। সে কারণে বেশ লজ্জায় পড়তে হয়েছিল তাকে।

পূজা বলেন, ‘আমাদের পাশের বাসায় এক আন্টি থাকতেন। তিনি বুটিকসে কাজ করতেন। আন্টির দেওয়া প্রস্তাবে প্রথম বুটিকসের মডেল হই। তখন আমি ক্লাস ওয়ানে পড়ি। এরপর একদিন পরিচালক সায়মন তারিক ভাইয়ের সঙ্গে দেখা। তিনি আমাকে ছবিতে কাজ করার প্রস্তাব দিলেন। আম্মু শুনে ভীষণ খুশি। বেশ কিছুদিন পর একদিন তিনি এফডিসিতে ডাকলেন। তখনই প্রথম আমরা এফডিসিতে যাই।’

পূজা চেরি আরও বলেন, ‘ওই সময় এফডিসিতে জাকির হোসেন রাজু স্যারের “মনের ঘরে বসত করে” ছবির শুটিং চলছিল। ছবিতে শাকিব ভাইয়ের ছোট বোনের চরিত্রে অভিনয় করতে বলা হলো। আমি এক কথাতেই রাজি হয়ে গেলাম। প্রথম অভিনয় বলে কথা, আনন্দটাও ছিল অনেক বেশি। ছবি মুক্তি পর বন্ধুবান্ধব, আত্মীয়-স্বজন, প্রতিবেশী সবাইকে নিয়ে সিনেমাহলে গিয়েছি ছবি দেখতে। কিন্তু ছবি শুরু হওয়ার পর আমার অভিনয় করা দৃশ্যটি আর এলো না। মানে, ছবিতে আমার অভিনয়ের অংশটুকু আর রাখা হয়নি। সবাই তখন জানতে চাইলো “আমি কোথায়?” সেদিনের মতো লজ্জা আর মন খারাপ আমার আর কোনো দিন হয়নি। সবার সামনে সেদিন অনেক লজ্জায় পড়তে হয়েছিল আমাদের।’

‘আম্মু তখন জেদ ধরলো, আমাকে যে করেই হোক সিনেমার পদার্য় দেখবেন। সবশেষে মনতাজুর রহমান আকবর স্যারের “ছোট্ট সংসার” ছবির মধ্য দিয়ে প্রথম সিনেমার পর্দায় আমাকে দেখা গেল। সেসময় আমার অভিনীত ‘ভালোবাসার রঙ’ ছবিটি মুক্তি পায়’ বলেও জানান এই অভিনেত্রী।

এদিকে, ঈদের আমেজ কাটিয়ে কাজে ফিরেছেন পূজা চেরি। সম্প্রতি নারায়ণগঞ্জের জিন্দা পার্ক এলাকায় শুরু হয়েছে ‘শান’ ছবির শুটিং। এম এ রাহিমের পরিচালনায় এতে তার বিপরীতে অভিনয় করছেন সিয়াম আহমেদ। এটি এই জুটির তৃতীয় ছবি। এতে আরও অভিনয় করছেন চম্পা, অরুণা বিশ্বাস, মিশা সওদাগর, তাসকিন রহমান, মুরাদ পারভেজ, ফখরুল বাশার, মাহাদি হোসেন পিয়ালসহ অনেকে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.