খোলা ডেকে উদ্দাম অশ্লীলতা

তাঁরা সঙ্গে করে স্বল্পবসনা তরুণীদের সঙ্গে করেই জাহাজে ওঠেন। প্রকাশ্যেই তাঁদের সঙ্গে যৌনতায় লিপ্ত হন তাঁরা।
লাক্সারি ক্রুজের যাত্রীরা ভাবতেও পারেননি তাঁদের সুখযাত্রা কীভাবে ধ্বংস করে দেবে একদঙ্গল ‘অভব্য’ যাত্রী। এক ভারতীয় গুটখা নির্মাণকারী সংস্থার কর্মীরা যেভাবে অশ্লীল আচরণে ‘নরক’ বানিয়ে তুললেন জাহাজের ডেককে, তা সত্যিই লজ্জাজনক।

এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে জানা যাচ্ছে, ওই কর্মীদের আচরণ দেখে জাহাজে অবস্থিত অস্ট্রেলিয়ান যাত্রীরা কার্যত পালিয়ে যান নিজেদের ঘরে। ঢুকে দরজা বন্ধ করে দেন।

ওই প্রতিবেদন থেকে জানা যাচ্ছে, ওই গুটখা সংস্থার এক হাজারেরও বেশি কর্মী প্রমোদ তরণীতে ছিলেন। তাঁরা সঙ্গে করে স্বল্পবসনা তরুণীদের সঙ্গে করেই জাহাজে ওঠেন। প্রকাশ্যেই তাঁদের সঙ্গে যৌনতায় লিপ্ত হন তাঁরা। কেবল তা-ই নয়, জাহাজের অন্য মহিলা যাত্রীদেরও ছবি তুলতে থাকেন তাঁরা। তাঁদের বিরক্তও করতে থাকেন। পুরুষদের সঙ্গে শুরু হয় তীব্র বচসা। এক ভুক্তভোগীর কথা অনুযায়ী, ‘‘সব জায়গায় ক্যামেরা ছিল। প্রত্যেকের হাতেই ছিল ক্যামেরা।’’

ওই জাহাজে যে জায়ান্ট স্ক্রিন ছিল, সেখানে হলিউডের সিনেমা চালানোর কথা ছিল। সেখানেও গুটখা সংস্থার বিজ্ঞাপন চালিয়ে দেন ওই সংস্থার কর্মীরা।

পুরো বিষয়টি নিয়ে তদন্ত করছে রয়্যাল ক্যারিবিয়ান ইন্টারন্যাশনাল। ওই প্রমোদ তরণী ওই সংস্থারই। অতিষ্ঠ যাত্রীদের টিকিটের মূল্যও ফেরত দেওয়া হয়েছে।

গোটা ঘটনায় ভারতীয় ওই যাত্রীদের কাণ্ডে বাকি যাত্রীরা বিক্ষুব্ধ। এবেলা.ইন |

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.