ফিফার কাছে জবাব চেয়েছে ব্রাজিল

ফুটবলের সর্বোচ্চ সংস্থা ফিফার কাছে জবাব চেয়েছে ব্রাজিল ফুটবল সংস্থা (সিবিএফ)। এই বিশ্বকাপ থেকেই চালু হয়েছে ভিডিও অ্যাসিসট্যান্ট রেফারি (ভিএআর)। কিন্তু সুইজারল্যান্ডের বিপক্ষে গত রোববার তাদের প্রথম গ্রুপ ম্যাচের গুরুত্বপূর্ণ দুটি সিদ্ধান্তের জন্য কেন ভিএআরের সহায়তা নেয়া হলো না সে ব্যাখ্যাই চাইছে ব্রাজিল। সিবিএফ আনুষ্ঠানিক অভিযোগ দায়ের করেছে ফিফার কাছে।

১-১ গোলে ওই ম্যাচ ড্র হয়েছে। যা ফেভারিট ব্রাজিলের জন্য বেদনার। তাদের বিশ্বাস, ওই দুটি সিদ্ধান্ত ভিএআরে নিলে ম্যাচটা ড্র তো হতোই না উল্টো জিতেই মাঠ ছাড়তো তারা। গ্রুপ ‘ই’ এর ওই ম্যাচে ব্রাজিল সহজেই জিতবে ভেবেছিলেন অনেকে। কিন্তু তা হয়নি। আর দ্বিতীয়ার্ধে সুইজারল্যান্ডের স্টিভেন জুবের গোল করে সমতা আনলেও ব্রাজিলের খেলোয়াড়রা রেফারির কাছে ফাউলের আবেদন জানিয়েছিলেন। ডিফেন্ডার মিরান্দাকে ফাউল করার অভিযোগ তারা করেছিলেন গোলদাতা জুবেরের বিরুদ্ধে।

আরেকটি ঘটনায় কেন ভিএআর এর সহায়তা নেয়া হলো না তা ভেবেও বিস্মিত সিবিএফ। তাদের বিশ্বাস, গ্যাব্রিয়েল জেসুসকে ইচ্ছে করেই পেনাল্টি এরিয়ার মধ্যে ফেলে দেয়া হয়েছিল। যার ফলে ব্রাজিলের স্পট কিক পাওয়ার কথা। যা হয়নি। দুটি ঘটনার কোনোটিরই রিভিউ করা হয়নি। এক বিবৃতিতে জানায়, ‘সিবিএফ ফিফার কাছে জানতে চায় ওই খেলার গুরুত্বপূর্ণ সময় ঘটা ঘটনায় কেন প্রযুক্তি ব্যবহার করা হলো না।’

তবে ফিফা এই প্রযুক্তি ব্যবহারের জন্য নিয়মও করে দিয়েছে। তাদের নিয়মে, নিশ্চিত ভুল, চোখ এড়িয়ে যাওয়া ম্যাচের ফল বদলে দেয়ার মতো ঘটনায় ভিএআরের সহায়তা নেয়া হয়। ব্রাজিলের বিশ্বাস, তারা যে দুটি ঘটনার কথা বলছে তার দুটিই ফিফার ওই ব্যাখ্যার মধ্যে আছে। তারপরও কেন ভিএআর ব্যবহৃত হলো না, ড্র করতে হলো তাদের প্রথম ম্যাচেই, সেই ক্ষোভ ফিফাকে সরাসরি জানিয়ে জবাব চাইছে ব্রাজিল।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.