বন্যার পানি পানযোগ্য করার প্রযুক্তি আবিস্কার

বন্যার পানিকে বিশুদ্ধ ও পানযোগ্য করার একটি সহজ পদ্ধতি আবিস্কার করা হয়েছে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে রবিবার এ তথ্য জানানো হয়।
এতে বলা হয়, জাপানি বিজ্ঞানীদের সহযোগিতায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ‘সেন্টার ফর অ্যাডভান্সড রিসার্চ ইন সায়েন্সেস’ সম্প্রতি এই পদ্ধতি আবিস্কার করেছে। পানি বিশুদ্ধকরণ এই পদ্ধতি ও প্রযুক্তি শিগগিরই বন্যা দুর্গতদের মাঝে বিতরণ করা হবে।
বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, জাপানের অর্গানাইজেশন অব রিসার্চ প্রমোশন ফর ক্লিন আর্থ (ওআরপিসিই)-এর পরিচালক ড. তাকাহাসি মাছায়োসি আজ রোববার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিকের সঙ্গে তার কার্যালয়ে সাক্ষাৎকালে এই তথ্য জানান।
এসময় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সেন্টার ফর এ্যাডভান্সড রিসার্চ ইন সায়েন্সেস-এর প্রিন্সিপ্যাল সায়েন্টিস্ট ড. লতিফুল বারী উপস্থিত ছিলেন।
উপাচার্য অধ্যাপক ড. আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক সম্প্রতি গুলশানে এক জঙ্গি হামলায় জাপানি নাগরিকদের হতাহত হওয়ার ঘটনায় গভীর দুঃখ প্রকাশ করে বলেন, বাংলাদেশের জনগণ ঐতিহ্যগতভাবেই অতিথি পরায়ণ। রাতের খাবারের সময় রেস্টুরেন্টে এ ধরনের জঙ্গি হামলায় এদেশের মানুষ ক্ষুব্ধ ও মর্মাহত।
জাপানি বিজ্ঞানী ড. তাকাহাসি মাছায়োসি বাংলাদেশের জনগণকে অসাম্প্রদায়িক ও অত্যন্ত উদার হিসাবে অখ্যায়িত করে বলেন, জঙ্গিগোষ্ঠী কতিপয় যুবকের মগজ ধোলাই করে এ ধরনের সন্ত্রাসী কার্যক্রম চালাচ্ছে। যা বাংলাদেশের জনগণের চরিত্রের সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ নয়।
এসময় বাংলাদেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে জাপানের সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে বলে তিনি উল্লেখ করেন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.