বিল গেটসকে টপকে বিশ্বের শীর্ষ ধনী জেফ বেজোস

চলতি বছর ফোর্বসের তালিকায় বিশ্বের শীর্ষ ধনী হিসেবে অ্যামাজনপ্রধান জেফ বেজোসের নাম উঠে এসেছে। আর আগের শীর্ষস্থান হারিয়ে তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে নেমে এসেছেন মাইক্রোসফটের প্রতিষ্ঠাতা বিল গেটস। সম্পদের পরিমাণ কমে যাওয়ায় তালিকায় অবস্থানের অবনমন হয়েছে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পেরও। খবর এএফপি।

মঙ্গলবার প্রকাশিত ফোর্বসের বার্ষিক বিলিয়নেয়ার তালিকা অনুযায়ী, সম্পদ কমে যাওয়ায় মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প ৫৪৪তম অবস্থান থেকে ৭৬৬-এ নেমে এসেছেন। বর্তমানে তার সম্পদের পরিমাণ ৩১০ কোটি ডলার, যা আগের বছরের তুলনায় ৪০ কোটি ডলার কম।

ফোর্বসের দেয়া তথ্যানুযায়ী, শীর্ষ ধনী বেজোসের সম্পদের পরিমাণ ১১ হাজার ২০০ কোটি ডলার। গত ১২ মাসে অ্যামাজনের শেয়ারদর ৫৯ শতাংশ বেড়ে যাওয়ায় তার সম্পদও বৃদ্ধি পেয়েছে। ফলে ৯ হাজার কোটি ডলার সম্পদের মালিক বিল গেটসকে টপকে শীর্ষ ধনীর তকমাটি এখন বেজোসের ঝুলিতে। বেজোস ফোর্বসের তালিকায় সর্বোচ্চ ধনী হয়েছেন, এমন খবর প্রকাশের পর অ্যামাজনের শেয়ারমূল্য আরেক দফা বেড়ে গেছে। এর প্রভাবে বেজোসের সম্পদ আরো বেড়ে ১২ হাজার ৭০০ কোটি ডলার হয়েছে। এতে করে সম্পদের পরিমাণের দিক থেকে বেজোস ও গেটসের দূরত্ব আরো বাড়ল।

অন্যদিকে কিংবদন্তিতুল্য বিনিয়োগকারী ওয়ারেন বাফেট তার তৃতীয় অবস্থান ধরে রেখেছেন। এর পরই রয়েছেন ফরাসি শিল্পপতি বারনার্ড আর্নো; যিনি আগের ১১তম অবস্থান থেকে এবার চতুর্থ স্থান দখল করেছেন। ফোর্বসের মতে, আর্নোর এ উত্থানের পেছনে অন্যতম কারণ ডলারের বিপরীতে ইউরোর শক্তিশালী অবস্থান। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের প্রধান কর্মকর্তা মার্ক জাকারবার্গ রয়েছেন পঞ্চম অবস্থানে।

এবারের তালিকায় প্রথম ২০ জন বিলিয়নেয়ারের মধ্যে দুজন চীনা নাগরিকও রয়েছেন। তারা হলেন চীনের ইন্টারনেট জায়ান্ট টেনসেন্টের সিইও মা হুয়াতেং (এশিয়ার শীর্ষ ধনী) এবং আলিবাবার প্রতিষ্ঠাতা জ্যাক মা। ফোর্বসের হিসাব অনুযায়ী, বিশ্বে বর্তমানে বিলিয়নেয়ারের সংখ্যা ২ হাজার ২০৮ জন। তাদের সম্মিলিত সম্পদের পরিমাণ ৯ দশমিক ১ ট্রিলিয়ন ডলার, যা গত বছরের তুলনায় ১৮ শতাংশ বেশি।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.