বিশ্বের প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে প্রধানমন্ত্রী হয়ে নজির গড়লেন কিং খান

জাতীয় আইনসভার ভোটাভুটিতেও অবশেষে জয় এল। আনুষ্ঠানিকভাবে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী হলেন তেহরিক-ই-ইনসাফ নেতা ও পাকিস্তানের বিশ্বকাপজয়ী প্রাক্তন ক্রিকেটার ইমরান খান।

বিশ্বের প্রথম কোনও ক্রিকেটার হিসেবে প্রধানমন্ত্রী হয়ে নজির গড়লেন কিং খান।

২৫ জুলাইয়ের নির্বাচনে তাঁর দল সবচেয়ে বেশি আসন পেলেও সরকার গঠনের জন্য তা যথেষ্ট ছিল না।

জাতীয় নির্বাচনে পিটিআই পায় ১১৬টি আসন। পরে ৯ স্বতন্ত্র প্রার্থী দলটিতে যোগ দেয়ায় এ সংখ্যা দাঁড়ায় ১২৫-এ। এছাড়াও গত সপ্তাহে পাকিস্তানের নির্বাচন কমিশনের পক্ষ থেকে পিটিআই-কে ৩৩টি সংরক্ষিত আসন বরাদ্দ দেয়ার পর দলটির বর্তমান আসন সংখ্যা এখন ১৫৮।

যদিও, অন্যান্য মিত্রদের সহায়তায় পার্লামেন্টে ১৮০ জন সদস্যের সমর্থন পাওয়ার আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন পিটিআই মুখপাত্র ফাওয়াদ চৌধুরী।

আর শুক্রবার (১৭ আগস্ট ২০১৮) জাতীয় পরিষদের ১৭৬ জন সদস্য পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই) চেয়ারম্যান ইমরানের পক্ষে ভোট দেয়। আর বিরোধী জোটের পাকিস্তান মুসলিম লীগ-নওয়াজ (পিএমএল-এন) প্রেসিডেন্ট শাহবাজ শরিফ ৯৬ ভোট পান।

নির্বাচনের ফল ঘোষণার পর পিএমএল-এনের আইনপ্রণেতারা স্লোগান দেন এবং প্রতিবাদ জানান।

সাধারণ নির্বাচনে তৃতীয় অবস্থান নিশ্চিত করা পাকিস্তান পিপলস পার্টি (পিপিপি) শাহবাজকে সমর্থন জানালেও শেষ মুহূর্তে তা থেকে সরে দাঁড়ায় এবং ভোট দেয়া থেকে বিরত থাকে। এদিকে মুত্তাহিদা মজলিশ-ই-আমাল (এমএমএ)-র ব্যানারে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করা জামাত-ই-ইসলামীর প্রার্থী উভয় নেতাকেই ভোট দেয়া থেকে বিরত ছিলেন।

এদিকে আগামীকাল শনিবার প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শপথ নেবেন ক্রিকেটার থেকে রাজনীতিক বনে যাওয়া ইমরান খান। দেশটির রাষ্ট্রপতি মামনুন হোসেন এই শপথ পাঠ করাবেন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.