ব্রিটেনে ধারণার চেয়ে ৩ গুণ অবৈধ অভিবাসী

ব্রিটেনে অন্তত ১০ লাখ অবৈধ অভিবাসী রয়েছে যা অনুমানের চেয়ে তিন গুণ বেশি। এমন তথ্য জানিয়ে এই বিপুল সংখ্যক অভিবাসীকে বের করে দেয়ার সক্ষমতা সরকারের আছে কিনা তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন দেশটির সীমান্তরক্ষা বাহিনী বর্ডার এজেন্সি’র সাবেক প্রধান রব হোয়াইটম্যান।

তিনি মনে করেন, এতো অবৈধ অভিবাসীকে সামলাতে যে সম্পদ এবং রাজনৈতিক সামর্থ্য থাকা উচিৎ তা ব্রিটেন সরকারের নেই।

তার এমন মন্তব্যে প্রশ্নের মুখে পড়েছে ব্রিটেনের সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এবং সদ্য নির্বাচিত প্রধানমন্ত্রী টেরেসা মে’র অভিবাসী নীতি। সীমান্ত সুরক্ষিত করতে টেরেসা যথেষ্ট পদক্ষেপ নিয়েছিলেন কিনা তা নিয়েও প্রশ্ন উঠছে। কারণ দ্বীপদেশ ব্রিটেনের ৭ হাজার মাইল সমুদ্রতীর পাহারা দিচ্ছে মাত্র ৩টি পেট্রোল বোট।

ব্রিটেনের সমুদ্রসীমার নিরাপত্তা ব্যবস্থা যথেষ্ট নয় বলে বৃহস্পতিবার এক রিপোর্ট প্রকাশ করে ব্রিটিশ সাংসদদের একটি বিশেষ কমিটি। এজন্য স্বল্পমাত্রার টহলের বদলে বরং ছোট বন্দরগুলোর নিরাপত্তার স্বার্থে যুদ্ধ জাহাজ মোতায়েনের সুপারিশ করা হয় ওই প্রতিবেদনে।

আর সেই প্রতিবেদনের সূত্র ধরেই অবৈধ অভিবাসী এবং অবৈধ শ্রমিকদের সম্পর্কে এসব তথ্য জানান ২০১১ সাল থেকে ২০১৩ সাল পর্যন্ত ব্রিটেনের সীমান্তরক্ষা বাহিনীর প্রধান কর্মকর্তার দায়িত্বে থাকা রব হোয়াইটম্যান।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.